কিম জং ন্যাম হত্যা : উ. কোরিয়ার ওপর নতুন নিষেধাজ্ঞা

নোয়াখালী বার্তা | ৭ মার্চ, ২০১৮ | ০৯:০৫ পূর্বাহ্ণ |আপডেট: ৭ মার্চ, ২০১৮ | ০৯:০৫

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: উত্তর কোরিয়ার সর্বোচ্চ নেতা কিম জং উনের সৎভাই কিম জং ন্যামকে রাসায়নিক গ্যাস দিয়ে হত্যা করা হয়েছে বলে নিশ্চিত করেছে যুক্তরাষ্ট্র। উত্তর কোরিয়া সরকারের নির্দেশে মালয়েশিয়ার বিমানবন্দরে ভিএক্স নার্ভ প্রয়োগ করে ন্যামকে হত্যা করা হয়েছে বলে উল্লেখ করেছে মার্কিন পররাষ্ট্র দপ্তর। খবর বিবিসি।

২০১৭ সালের ফেব্রুয়ারি মাসে কুয়ালালামপুর বিমানবন্দরে রাসায়নিক বিষ প্রয়োগের কারণে মারা যান কিম জং ন্যাম। সে সময়ের একটি ভিডিও ফুটেজে দেখা গেছে, দুই তরুণী ন্যামের মুখে কিছু একটা চেপে ধরছে।

হত্যার অভিযোগে মালয়েশিয়ায় ওই দুই তরুণীর বিচার চলছে। তাদের দাবি, একটি প্রাংক ভিডিওর অংশ হিসেবে তারা ওই কাজ করেছিলেন। এটা যে কোনো হত্যাকাণ্ড সেটা তারা ক্ষুণাক্ষরেও বুঝতে পারেননি।

মার্কিন পররাষ্ট্র দপ্তর বলছে, এই হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় উত্তর কোরিয়ার উপর নতুন নিষেধাজ্ঞা আরোপ করা হবে। তবে এ ধরনের কোন কাজে জড়িত থাকার অভিযোগ নাকচ করে দিয়েছে উত্তর কোরিয়া।

দক্ষিণ কোরিয়ার একটি উচ্চপদস্থ প্রতিনিধি দল পিয়ংইয়ং সফর করে আসার পরপরই এই তথ্য জানা গেল। ছোটভাই কিম জং উনের হাতে নেতৃত্ব চলে যাবার পর পরিবার থেকে অনেকটা বিচ্ছিন্ন ছিলেন কিম জং ন্যাম। তার বেশিরভাগ সময় কেটেছে ম্যাকাও, চীন ও সিঙ্গাপুরে।

বিভিন্ন সময় তিনি উত্তর কোরিয়ায় তাদের পারিবারিক নিয়ন্ত্রণের বিরুদ্ধে কথা বলেছেন। একটি বইয়ে তাকে উদ্ধৃত করে লেখা হয় যে, তিনি মনে করেন তার ছোট ভাইয়ের নেতৃত্ব দেয়ার যোগ্যতার অভাব রয়েছে।

Please follow and like us:
0

এরকম আরো সংবাদ