নোয়াখালীতে শ্রেষ্ঠ ইউএনও আরিফুল ইসলাম সরদার

দৈনিক নোয়াখালীবার্তা | ২৬ ডিসেম্বর, ২০১৯ | ১৪:১৩ অপরাহ্ণ |আপডেট: ২৬ ডিসেম্বর, ২০১৯ | ১৪:১৩

ষ্টাফ রিপোর্টার :
নোয়াখালী সদর উপজেলায় প্রাথমিক শিক্ষায় বিশেষ অবদান রাখায় জেলার শ্রেষ্ঠ উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) নির্বাচিত হয়েছেন মো.আরিফুল ইসলাম সরদার। ২০১৯ সালে ১৭টি বিভিন্ন ক্যাটাগরির মধ্যে উপজেলা নির্বাহী অফিসার হিসেবে তিনি জেলার শ্রেষ্ঠ উপজেলা নির্বাহী অফিসার নির্বাচিত হন।

শ্রেষ্ঠ শিক্ষক, শিক্ষিকা, কর্মকর্তা, কর্মচারী, ব্যক্তি ও প্রতিষ্ঠানের বাছাই কমিটির সভাপতি ও জেলা প্রশাসক তন্ময় দাস স্বাক্ষরিত এক প্রজ্ঞাপনে তাকে জেলা পর্যায়ে শ্রেষ্ঠ উপজেলা নির্বাহী অফিসার হিসেবে ঘোষণা করা হয়। এরআগে ২০১৮ সালেও তিনি জেলার শ্রেষ্ঠ উপজেলা নির্বাহী অফিসার হিসেবে নির্বাচিত হয়েছেন।

মো.আরিফুল ইসলাম সরদার ২০১৭ সালের ১১ মে এ উপজেলায় যোগদান করেন। তিনি গোপালগঞ্জ জেলার কাশিয়ানী উপজেলার শুক্তা গ্রামের মৃত আ.স.ম মঈনুদ্দীন সরদারের ছেলে। যোগদানের পর থেকেই মেধা, যোগ্যতা আর দায়িত্ববোধের প্রমাণ দিয়ে তিনি জয় করে নিয়েছেন উপজেলাবাসীর মন। তিনি একজন শিক্ষাবান্ধব উপজেলা নির্বাহী অফিসার হিসেবে ইতোমধ্যে ছাত্রছাত্রীদের দুর্বলতা কাটিয়ে তোলার জন্য উপজেলার অন্য কর্মকান্ডের পাশাপাশি বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে ঝরেপড়া রোধ, শিক্ষার মান বাড়াতে বিভিন্ন কার্যক্রম গ্রহণ, মাদকমুক্ত যুবসমাজ গড়তে খেলাধুলা, অবসর বিনোদনের জন্য কুইজ প্রতিযোগিতা ব্যবস্থা করেছেন। যানজট নিরসন এবং বেকার সমস্যা সমাধানকল্পে কারিগরি শিক্ষা, হস্তশিল্প, কম্পিউটার প্রশিক্ষণ, উপজেলার প্রতিটি দপ্তরে দুর্নীতিমুক্ত সেবার মান বাড়াতে নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছেন।

শিক্ষার মানোন্নয়নে উপজেলার প্রত্যেকটি প্রাথমিক, মাধ্যমিক বিদ্যালয় এবং কলেজগুলো পরিদর্শন করছেন আরিফুল ইসলাম সরদার। নির্বাহী অফিসার হিসেবে উপজেলায় তার তত্ত্বাবধানে চলছে আধুনিক আদর্শ সদর উপজেলা গড়ার কাজ।

মো. আরিফুল ইসলাম সরদার বলেন, শিক্ষার্থীদের শিক্ষার মানোন্নয়নই শিক্ষার সর্বোৎকৃষ্ট পন্থা। সেরা নির্বাচিত হওয়ায় প্রাসনের পক্ষ থেকে বিভিন্ন পর্যায়ের কর্মকর্তাগন তাকে শুভেচ্ছা জানিয়েছেন।

Please follow and like us:

এরকম আরো সংবাদ