সোনাইমুড়ীতে নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে অবৈধভাবে বালু উত্তোলন

দৈনিক নোয়াখালীবার্তা | ২২ সেপ্টেম্বর, ২০২০ | ১৫:০৩ অপরাহ্ণ |আপডেট: ২২ সেপ্টেম্বর, ২০২০ | ১৫:০৩

ষ্টাফ রিপোর্টার:নোয়াখালীর সোনাইমুড়ী উপজেলার বজরা ইউনিয়নের শিলমুদ গ্রামে উপজেলা নির্বাহী অফিসারের (ইউএনও) নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে ড্রেজার মেশিন দিয়ে অবৈধভাবে বালু উত্তোলন অব্যাহত রেখেছে স্থানীয় এক প্রভাবশালী। এতে এলাকার রাস্তাঘাট, ফসলি জমি, গাছ-পালাসহ একাধিক স্থাপনা ক্ষতির সম্মুখীন হচ্ছে।
স্থানীয়রা জানান, চলতি মাসের শুরু থেকেই উপজেলার শিলমুদ গ্রামের উত্তর পাড়ায় কৃষি জমি থেকে অবৈধভাবে বালু উত্তোলন করে আসছে সোলাইমান চৌকিদারের ছেলে মো. আবদুল্যাহ। এতে তাদের ফসলি জমি, গাছ-পালাসহ স্থাপনার ক্ষতি হওয়ার আশঙ্কা দেখে উপজেলা নির্বাহী অফিসারকে বিষয়টি অবগত করলে তিনি গত ১০ সেপ্টেম্বর সকালে সহকারী কমিশনার (ভূমি) অঙ্গাজাই মারমাকে পাঠিয়ে বালু উত্তোলন বন্ধ করে দেয়। কিন্তু বালু উত্তোলন বন্ধের দুইদিন পরই আবারো বালু উত্তোলন শুরু করে ওই প্রভাবশালী।
বালু উত্তোলনের বিষয়ে মো. আবদুল্ল্যাহর পিতা সোলায়মান চৌকিদার বলেন, তাদের নিজ জমি থেকে একটি ভিটি ভরাট করার উদ্দেশ্যে তার ছেলে আব্দুল্ল্যাহ ড্রেজার মেশিন দিয়ে বালু উত্তোলন করছে। এ ব্যাপারে স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান মির অর রশীদ ও উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান খন্দকার রুহুল আমিন সাহেবকে জানানো হয়েছে। তাদের অনুমতি নিয়েই বালু উত্তোলন করা হচ্ছে।
উপজেলা নির্বাহী অফিসার টিনা পাল সহকারী কমিশনার (ভূমি) কে পাঠিয়ে বালু উত্তোলন বন্ধের বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান নিষেধাজ্ঞা অমান্য করায় বালু উত্তোলনকারী ওই ব্যক্তির বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে।
উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান খন্দকার রুহুল আমিন জানান, বালু উত্তোলনের বিষয়ে তিনি কাউকে কোন অনুমতি দেননি এবং তিনি এ ব্যাপারে কিছুই জানেন না।

Please follow and like us:

এরকম আরো সংবাদ