নোয়াখালীতে বিএনপি মেয়র প্রার্থীর বাড়িতে, ভাঙচুরের অভিযোগ

দৈনিক নোয়াখালীবার্তা | ২৯ জানুয়ারি, ২০২১ | ১৩:২০ অপরাহ্ণ |আপডেট: ২৯ জানুয়ারি, ২০২১ | ১৩:২০

ষ্টাফ রিপোর্টার :  নোয়াখালীর সোনাইমুড়ী পৌরসভার বিএনপির মেয়র প্রার্থী মোতাহের হোসেন মানিকের বাড়িতে দুবৃর্ত্তরা ককটেল বিস্ফোরণ ঘটিয়ে ভাঙচুর করেছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।
বৃহস্পতিবার (২৮ জানুয়ারি) সন্ধ্যার পর উপজেলার রামপুরে এ ঘটনা ঘটে।

বিএনপির মেয়র প্রার্থী মোতাহের হোসেন মানিক অভিযোগ করে বলেন, সন্ধ্যার পরে তিনি রামপুরে তার বাড়িতে নির্বাচন সংক্রান্ত এক মত বিনিময় সভায় মিলিত হন। এসময় দুবৃর্ত্তরা ১৫-১৬টি মটর সাইকেল যোগে এসে তার বাড়িতে ককটেল হামলা চালায়। তারা ঘরের দরজা জানালা ভাঙচুর করে। এতে বাড়ির নারী ও শিশুরা আতঙ্কিত হয়ে পড়ে এবং কান্নাকাটি শুরু করে। দুর্বৃত্তরা যাওয়ার সময় নাওতলা গ্রামে ধানের শীষের প্রচারণার মাইকও ভাঙচুর করে ।

বিএনপি মেয়র প্রার্থী মোতাহের হোসেন মানিক এ ঘটনার জন্য আওয়ামী লীগ প্রার্থী নুরুল হকের সমর্থকদের দায়ী করে বলেন, আমি বিষয়টি তাৎক্ষণিক স্থানীয় সংসদ সদস্য, নোয়াখালী জেলা প্রশাসক, পুলিশ সুপার, নির্বাচন কর্মকর্তা, সোনাইমুড়ী থানার ওসিকে অবহিত করেছি।
তিনি আরও অভিযোগ করেন, তার প্রচারণার কাজে নিয়োজিত নেতা-কর্মীদের ধানের শীষের প্রচারণা চালালে খুন করবে বলবে হুমকি দেয় তারা। তিনি এ ঘটনার সুষ্ঠ বিচার দাবি করেন।
বিএনপির প্রার্থীর অভিযোগ অস্বীকার করে আওয়ামী লীগ প্রার্থী নুরুল হক জানান, আমাদের কর্মীরা নৌকার প্রতীকের প্রচারণার জন্য রামপুর এলাকায় যায়। সন্ধ্যার পরে বিএনপি প্রার্থীর বাড়ির সামনে পৌঁছালে তাদের ওপর অতর্কিত হামলা করে। এসময় রেদোয়ান নামে এক ছাত্রলীগ নেতাসহ কয়েকজন আহত হয়।

সোনাইমুড়ী থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মুহাম্মদ গিয়াস উদ্দিন জানান, দুই পক্ষই পাল্টাপাল্টি অভিযোগ করেছে। বিষয়টি খতিয়ে দেখে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে। তবে রেদোয়ান নামে এক ছাত্রলীগ নেতা তাদের ওপর হামলা হয়েছে বলে বিএনপি প্রার্থীর বিরুদ্ধে মামলা করছে।

Please follow and like us:

এরকম আরো সংবাদ