নোয়াখালীতে ক্যান্সার রোগী সেজে অর্থ হাতানোর চেষ্টা, বাবা-ছেলে আটক

দৈনিক নোয়াখালীবার্তা | ১৯ এপ্রিল, ২০২২ | ১৫:১৩ অপরাহ্ণ |আপডেট: ১৯ এপ্রিল, ২০২২ | ১৫:১৩

ষ্টাফরিপোর্টার: নোয়াখালীর সমাজ সেবা অধিদপ্তরে ভুয়া সনদে ক্যান্সার রোগী সেজে অর্থ আদায়ের অভিযোগে প্রতারক বাবা-ছেলেকে আটক করেছেন জেলা প্রশাসক দেওয়ান মাহবুবুর রহমান ।
মঙ্গলবার (১৯ এপ্রিল) দুপুরে আটক দুই প্রতারককে সুধারাম মডেল থানা পুলিশের হস্তান্তর করেন তিনি ।
আটককৃতরা হলেন- সোনাইমুড়ী জয়াগ ইউনিয়নের ৬নং ওয়ার্ডের চকিদার বাড়ির মৃত বশির উল্ল্যাহর ছেলে মো. গিয়াস উদ্দিন (৪৫) ও তার ছেলে মো.ওমর ফারুক (১৫) ।
জেলা প্রশাসক দেওয়ান মাহবুবুর রহমান বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, তারা দুইজন বাবা ও ছেলে ।ভুয়া কাগজপত্র দিয়ে ক্যান্সার রোগীর ৫০ হাজার টাকার অর্থ সহায়তার জন্য আবেদন করেন ।আমি আবেদন যাচাই-বাছাই কমিটির সভাপতি ।তাদের যতই সত্য বলতে বলি তারা তা গোপন করেন ।
তিনি জানান, কয়েকবার সতর্ক করার পরও তারা বারবার আমাকে ভুল বোঝানোর চেষ্টা করেন ।আমি শক্তভাবে কথা বলায় তারা প্রতারণার কথা স্বীকার করেন ।তারপর তাদের পুলিশে সোপর্দ করেছি ।
সমাজসেবা অধিদপ্তর, নোয়াখালীর উপ-পরিচালক মো. নজরুল ইসলাম পাটোয়ারী জানান, আটককৃতরা ভুয়া কাগজপত্র দিয়ে ক্যান্সার রোগী সেজে টাকা আদায় করে ।এমন প্রতারকদের কারণে প্রকৃত রোগীরা অর্থ সহায়তা থেকে বঞ্চিত হন ।আমরা থানায় অভিযোগ দিয়েছি ।
সুধারাম মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আনোয়ারুল ইসলাম জানান, প্রতারক দুই জন থানা হেফাজতে রয়েছে ।এজহার দাখিল করা হচ্ছে ।এ বিষয়ে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে ।

Please follow and like us:

এরকম আরো সংবাদ